ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায়  – how to start blogging in bengali ?

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

নমস্কার বন্ধুরা,

আমরা আজ জানবো একটি ব্লগ কিভাবে শুরু করা যেতে পারে ?

 

এর আগে আমি আপনাকে জানিয়েছি ব্লগ কি ?

যদি ওই আর্টিকেল টিকে আপনি এখনো অব্দি না পড়ে থাকেন, তাহলে অবশ্যই পড়ে নিন,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় ? how to start blogging in bengali ?

 

#১ – ভালো ব্লগিং প্লাটফর্ম বেছে নিতে হবে :

 

ব্লগিং এর জন্যে সবচেয়ে ভালো দুটি প্লাটফর্ম বর্তমনে রয়েছে,

এর মধ্যে সবার থেকে আমার পছন্দের প্লাটফর্ম হলো ওয়ার্ডপ্রেস (wordpress),

 

এর মধ্যে আমার পছন্দ ওয়ার্ডপ্রেস এর কারণ হলো আলাদা,

SEO যেটি সাইট rank করার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ,

 

সেটি ছাড়া ব্লগ কখনো RANK  করতে  পারবে না,

BOOGGER.com যেটি খুবই পুরানো একটি প্লাটফর্ম এবং খুবই কম SEO টুলস এর জন্যে পাওয়া যায়,

 

আমরা আগে গিয়ে এই দুটি প্লাটফর্ম সম্পর্কে আরো বেশি করে জেনে নেবো,

জেনে নিন ওয়ার্ডপ্রেস হলো ফ্রি প্লাটফর্ম কিন্তু ব্লগার হলো ফ্রি প্লাটফর্ম,

 

#২ – একটি টপ লেভেল ডোমেইন কিনতে হবে :

 

ডোমেন এই যে ব্লগ আপনি পড়ছেন এটি একটি ডোমেন এ অবস্থিত  যেটি হলো : https://bengali.mydreamblog.in/, 

যদিও এটি সাব ডোমেন এ অবস্থিত তবে আমাদের main ডোমেইন হলো mydreamblog.in,

 

আপনি যদি ব্লগার use করেন তাহলে ঠিক এমনি ফ্রি  ডোমেইন আপনি পাবেন যেমন example.blogspot.com,

তবে আপনি ফ্রি ডোমেইন না নিলে খুবই ভালো করবেন,

 

একটি ডোমেইন কিনতে বিভিন্য রকমের দাম পড়তে পারে,

তবে আপনি ফ্রি ডোমেইন নিয়ে যদি ভাবেন লম্বা সময় পর্যন্ত ব্লগ করতে পারবেন,

 

তাহলে আপনার  ভাবনা ভুল,

আপনি কিছু টাকা খরচ করে পেইড ডোমেইন নিয়ে নেবেন,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

 

#৩ – হোস্টিং বেছে নিতে হবে :

 

হোস্টিং কি ? আমরা প্রথমে একটি ডোমেইন কিনে থাকি,

এর পরে কোনো না কোনো ভালো হোস্টিং প্রোভাইডার বেছে নি,

 

এবং তার পরে সাইট ডিসাইন করে নিয়ে থাকি হোস্টিং কেনার পরে,

চলুন একটু ভালো করে এর সম্পর্কে জেনে নি,

 

আমরা একটি ডোমেইন নিলাম > একটি হোস্টিং কোম্পানি থেকে হোস্টিং কিনে ডোমেইন যুক্ত করলাম > এবং হোস্টিং সাইট এ ওয়েবসাইট / ব্লগ বানিয়ে ওতে কাজ করা হয়ে থাকে,

 

যদি আপনি ব্লগস্পট (ফ্রি) দিয়ে সাইট করে থাকেন,

তাহলে আপনাকে ডোমেইন কিনে এতে পরে যুক্ত করতে পারেন,

 

আর যদি পেইড হোস্ট নেন তাহলে শুরুতে আপনাকে খরচ করতে হবে,

যেটি প্রথমের দিকে উচিত হবে না,

 

#৪ – ব্লগ আপনাকে অথবা কোনো ডেভলপার এর দ্বারা ডিজাইন করতে হবে : 

 

ব্লগ এর ডিসাইন খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা প্রদান করে থাকে,

আপনি নিজে এটিকে তৈরী করার জন্যে চেষ্টা করুন,

 

অথবা কোনো ডেভেলপার এর দ্বারা ডিসাইন করুন,

দরকার হলে আমাদের সাথে সম্পর্ক করতে পারেন,

 

তবে যদি আপনি কিছু দিন অপেখ্যা করতে পারেন,

আমরা খুবই তাড়াতাড়ি একটি ভিডিও নিয়ে এসব এর সম্পর্কে,

 

#৫ -নিজেকে জিজ্ঞেস করুন আপনি কেন ব্লগ্গিং করতে চান ?

 

টাকা আর টাকা এর ভাবনা মাথা থেকে বের করে দিন, লিখুন আর শিখুন,

যদি আপনি আপনার ভাবনা শেয়ার করতে চান তবেই আপনি সাকসেস হবেন,

নাহলে শুধু কপি আর পেস্ট করলে আপনি পারবেন না ব্লগিং এ সাকসেস পেতে,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

 

#৬ – আপনার পছন্দের বিষয় বেছে নিন :

 

অনেকে রয়েছেন যারা ভিন্য ভিন্য টপিক নিয়ে লিখতে ভালোবাসেন,

তবে শুরুতে আপনি এমন একটি টপিক নিয়ে লিখতে শুরু করুন জেটিতে আপনি অভ্যস্ত,

 

তা সে যেকোনো বিষয়ে কেন না হোক, যেমন ব্লগিং/ ট্রাভেল ইত্যাদি,

আপনি লেখার জন্য ইন্টারনেট এর সাহায্য নিতে পারেন, কোনো অসুবিধা নাই,

শুরু কপি না করলে সাকসেস হতে পারবেন,

 

#৭ – সাইট এর থিম অথবা ডিসাইন রেস্পন্সিভ রাখতে হবে :

 

যদিও এটি ডেভেলোপমেন্ট সম্পর্কে লেখনী নয় তবে আপনি খেয়াল রাখুন আপনার সাইট রেস্পন্সিভ হওয়া অনিবার্য,

এর অর্থ হলো যে ওয়েবসাইট / ব্লগ আপনি বানাবেন ওটির বাইরের লুক কেমন হবে ?

 

#১ : আপনার ব্লগ / সাইট দুটি যেকোনো হতে পারে কিন্তু এর দৃশ্য কম্পিউটার অথবা মোবাইল এ আলাদা হওয়া দরকার,

 

#২ : মেনু এবং অন্যান্য হেডার এর অংশ ইত্যাদি এর ফন্ট আলাদা হওয়া দরকার কম্পিউটার/ মোবাইল / ট্যাবলেট এ,

কিভাবে জানবেন আপনার ব্লগ / ওয়েবসাইট রেস্পন্সিভ কিনা ?

 

এর জন্য আপনিএখানে ক্লিক করুন, সেখানে আপনার ওয়েবসাইট এর অথবা ব্লগ এর ডোমেইন নাম দিয়ে সার্চ করুন,

যদি আপনার সাইট রেস্পন্সিভ হয় তাহলে নিচের মতো আপনি দেখতে পাবেন,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় - how to start blogging in bengali ?
ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

 

#৮ – ব্লগিং টিপস সম্পর্কে কোনো বই কিনে নিন :

 

ভাই বাঙালি আমরা তাই একটা কথা অবশ্যই বলে থাকি, কিছু পেতে গেলে কিছু দিতে হয়,

তা সে যাই হোক, আপনাকে একটু খরচ তো করতে অবশ্যই হবে,

এবং চেষ্টা করুন ব্লোগ্গিং সম্পর্কিত কোনো বই কিনে নিতে,

 

#৯ – লেখার ভাবনা বদলে নিন :

 

কনটেন্ট ইস দা কিং কথাটি ব্লোগ্গিং এর ক্ষেত্রে খুব কার্যকর, আপনি লেখার ধারণ বদলে নিন,

প্রথমে সম্ভব যদি হয় ফ্রি BLOG বানিয়ে লেখার ধারণ পাল্টে নেবার চেষ্টা  করুন,

 

#১০ – SEO সম্পর্কিত তথ্য প্রাপ্ত করুন :

 

SEO (Search Engine Optimization) সম্পর্কে হয়তো আপনি শুনে থাকবেন, আর যদি না জেনে থাকেন প্রথমে এটি শিখে নিন, 

কারণ এটির সাহায্য ছাড়া ব্লগ ranking অসম্ভব, যেমন ব্যাকলিংক , কীওয়ার্ড রিসার্চ ইত্যাদি,

 

#১১ -ভাবুন আলাদা ভাবে :

 

যেমন আগে বলেছি, ভাবুন এমন কিছু করুন এমন কিছু, জেতার সম্পর্কে কেউ আগে ভাবেনি, কেউ করেনি,

তার পারে ব্লোগ্গিং এ প্রবেশ করতে পারেন,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

 

#১২ – শেয়ার করতে হবে :

 

শেয়ার করতে হবে আপনার পোস্ট গুলি যেগুলি আপনি লিখেছেন কারণ যখন আমরা ব্লগে কিছু লিখি তখন সেটি সার্চ ইঞ্জিন এ ঠিকমতো ইনডেক্সিং হয়  না,

তাই প্রথম দিকে এগুলি শশা মিডিয়া তে শেয়ার করা খুব জরুরি,

 

#১৩ – গেস্ট পোস্ট সিস্টেম বানান :

 

গেস্ট পোস্ট সিস্টেমস যেটি ব্লগ এর জন্যে খুবই গুরুত্বপূর্ণ,

আমরা আগে এর সম্পর্কে আরো বেশি করে জেনে নেবো,

 

অবশ্যই আমরা এখানে এর সম্পর্কে লিখবো,

হিন্দি তে আমরা এটি সম্পর্কে লিখে আপনাকে জানিয়ে দিয়েছি,

এখানে ক্লিক করে পড়তে পারেন,

 

#১৪ – ছবি এডিট করা শিখুন :

 

অনলাইন শপিং পোর্টাল এ যখন আমরা কিছু কিনে থাকি,

তখন  ছবি ভালো দেখে তবেই  কিনি,

 

#১৫ – থেমে থাকবেন না :

 

একটু খরচ করবেন তবেই আপনার ইচ্ছে হবে লেখার জন্য,

এর কারণ আপনি ভাবতে থাকবেন,

 

যাতে খরচ করা  টাকা আপনি তুলতে পারেন,

আপনি লিখতে থাকুন ততটাই সময় পর্যন্ত জাতসময় অব্দি আপনার ব্লগ পপুলার না হয়ে যাচ্ছে ,

 

ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ?

 

#১৬ – লিখুন শেখার জন্যে :

 

লিখুন এবং শেয়ার করুন, যদি আপনি এমন কিছু তথ্য লিখছেন যেটি সঠিক নয়, তবে যদি কোনো ভিসিটর আসেন এবং আপনার ভুল তথ্য আপনাকে জানিয়ে দেয় তাহলে এর মাধ্যমে আপনি শিখতে পারবেন,

 

#১৭ – ব্লগ এ এবাউট us পেজ ইত্যাদি থাকা অনিবার্য :

 

এই এবাউট আস পেজ সকল ওয়েবসাইট এর জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ,

কারণ সাইটে  যদি কোনো ভালো আর্টিকেল আপনি তখন ভিজিটর চাইবে ওয়েবসাইট সম্পর্কে জানতে ,

আপনাকে তথ্যের জন্য জানিয়ে দি এডসেন্স এর এপ্প্রুভল এর জন্য এই পেজ থাকা খুবই জরুরি,

 

#১৮ – গুগল এনালিটিক্স টুলস এর ব্যাবহার করতে হবে :

 

সবথেকে জনপ্রিয় কারী ভিজিটর ট্র্যাকিং ফ্রি সিস্টেম হলো গুগল এনালিটিক্স,

আমরা আগে গিয়ে এর সম্পর্কে আরো বেশি করে জেনে নেবো,

খুব তাড়াতাড়ি ওয়েব ডেভলপমেন্ট টিউটোরিয়াল আমরা আপনাদের জন্যে নিয়ে এসব নিশ্চই,

 

#১৯ – অন্যান্য ব্লগার দের সাথে সম্পর্ক করুন :

 

যদি আপনি সাকসেস পেতে চান তাহলে আপনি অবশ্যই অন্যান্য ব্লগার দের সাথে যোগাযোগ করবেন ,

উনাদের থেকে জেনেনিন আপনি কি ঠিক করছেন আর কি বা ভুল করছেন ,

 

#২০ – কীওয়ার্ড সার্চিং টুলস এর বেবহার করতে হবে :

 

seo যেমন আগে জানিয়েছি ওর ই একটি অংশ হলো  কি ওয়ার্ড সার্চিং ,

খেয়াল রাখুন আপনি প্রথম দিকে লো সার্চ ভলিউম যুক্ত শব্দ ব্যাবহার করছেন।,

 

বন্ধুরা আজকের আমাদের এই পোস্ট ব্লগ কিভাবে শুরু করা যায় – how to start blogging in bengali ? সম্পর্কিত কোনো প্রশ্ন থাকলে কমেন্টে জানিয়ে দেবেন ,

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *